ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক ইউনিটে সাবজেক্ট চয়েজ দেয়ার সময় কিছু বিষয় মাথায় রাখা উচিত



ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক ইউনিটে প্রতি বছরই পজিশন প্রায় ৫০০০ পর্যন্ত যায় (কোটা ছাড়া) তাই যারা এর মধ্যে আছো সাবজেক্ট আসার সম্ভাবনা আছে। এবার আরও অনেকদুর অব্দি সাবজেক্ট আসবে যেহেতু সবার আগে ঢাবির পরীক্ষা হয়েছে।

সাবজেক্ট চয়েজ দেয়ার সময় কিছু বিষয় মাথায় রাখা উচিত। তোমার যে সব ক্ষেত্রে আগ্রহ বেশী সেসব সাবজেক্ট চয়েজ লিস্টে উপরে রাখবে। শুধু ভালো সাবজেক্ট ট্যাগ আছে বলেই যে কোন সাবজেক্ট কে চয়েজ লিস্টে উপরে রাখতে হবে এমন কোন কথা নেই। যদি এমনটা করো, তাহলে বলব তুমি জীবনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তটি নিতে ভুল করতেছো ।

সাবজেক্ট চয়েজের বেলায় নিজের প্যাশনের ব্যাপারটা খেয়াল করা উচিত, শুধু সাবজেক্টের নামের পেছনে দৌড়ালে তুমি ভুল সিদ্ধান্ত নিবে। তোমার যদি কোডিং করতে ভাল লাগে না আর তুমি CSE/IIT নিয়ে বসে থাক, তবে সেটার জন্য অবশ্যই তোমাকে পরে আফসোস করতে হবে।

কারণ আজ যে সাবজেক্টটা তুমি নিতান্ত ভালো ট্যাগ এর জন্য নিতেছো সেই সাবজেক্টটা নিয়েই তোমাকে বাকি জীবনটা চলতে হবে ধরা যায়। এই সাবজেক্ট নিয়েই তোমার কর্ম জীবন অতিবাহিত হবে। যদি তোমার এই সাবজেক্ট এর প্রতি তেমন কোন আকর্ষণ না থাকে বা ভার্সিটি তে পড়ার সময় কিছু দিনের মধ্যেই অনাগ্রহের সৃষ্টি হয় তবে তোমার বাকি জীবনটা এক রকম বিষাদময় হয়ে যাবে যদি তুমি কর্মক্ষেত্র পরিবর্তন না করো। এছাড়া ভার্সিটির ৪ বছর সবচেয়ে বড় যন্ত্রণার নাম হবে তোমার এই সাবজেক্ট। তাই শুধু বিলাসিতার বসে কোন সাবজেক্ট চয়েজ লিস্টে উপরে রাখা ঠিক হবে না। কারণ তোমার দেয়া চয়েজ লিস্টের উপরের সাবজেক্ট টাই তোমাকে দেয়ার ক্ষেত্রে বেশী প্রাধান্য দেয়া হয় যদি তোমার পজিশন কিছুটা ভালো থাকে।

তোমরা যারা মেরিটে বা এর কাছাকাছি পজিশনে চান্স পেয়েছ তারা চয়েজ দেয়ার সময় খুব চিন্তা ভাবনা করে দিবে কারণ তোমার চয়েজ লিস্টের উপর নির্ভর করছে, এই পজিশনের জন্য তোমার পছন্দের উপরের দিকে থাকা সাবজেক্ট পাওয়া বা না পাওয়া।
আর যাদের পজিশন একটু দুরে তাদের বলবো তুমি কোন সাবজেক্ট পাবা বা আসতে পারে তা প্রথম দিকে ২৫০০/৩০০০ পজিশন পর্যন্ত যারা আছে তাদের সাবজেক্ট নেয়ার উপর নির্ভর করছে।

কারণ তাদের ভর্তির পর আসন খালি থাকা সাপেক্ষে তোমাদের ডাকা হয়। তাই তোমরা কোন সাবজেক্ট পাবা বা দিবে বা আদেও পাবে কিনা তা পজিশন এ যারা আগে আছে তাদের চয়েজ এবং ভর্তির উপর সব কিছু নির্ভর করছে।

সাবজেক্ট মাইগ্রেশনের ব্যাপারে বলি, সবসময়ই উপরের দিকে মাইগ্রেশন হয়। মানে তুমি যে সিরিয়াল দিবে, সে সিরিয়ালের উপরের সাবজেক্ট মাইগ্রেশন হয় আসে, কখনোই নিচের গুলা আসবে না, যার কারণে সাবজেক্ট চয়েজ দেয়ার বেলা এ জিনিসটা খেয়াল রাখতে হবে।

তবে যাদের পজিশন মোটামুটি দুরে তাদের ভর্তির সাবজেক্ট পাওয়ার জন্য একটা কৌশল হল তুলনামূলক নিচের দিকের ট্যাগ লাগানো সাবজেক্ট ( যেই রিলেটেড বিষয়ে তোমার নাম্বার বেশী ) পছন্দক্রমের সবার উপরে দেয়া।

তাই অনেকে ওয়েটিং লিস্টে এগিয়ে থাকলেও চয়েজ লিস্ট ঠিকভাবে দিতে না পারার কারনে সাবজেক্ট পায় না।

যদিও সাবজেক্ট চয়েজের ব্যাপারটা একান্তই ব্যক্তিগত এবং নিজের প্যাশনের উপর নির্ভর করে, তবুও বিগত বছরের পজিশন অনুযায়ী সাবজেক্ট গুলার সিরিয়াল দেওয়া হল। (এটা Ranking না, পজিশনে যেগুলা আগে যায় সে হিসেবে একটা ধারণা দেয়া)

1. Genetic Engineering & Biotechnology

2. Software Engineering

3. Pharmacy

4. Computer Science & Engineering

5. Nuclear Engineering

6. Microbiology

7. EEE

8. Robotics and Mechatronics Engineering

9. Biochemistry & Molecular Biology

10.Applied Chemistry & Chemical Engineering

11. Applied Statistics (ISRT)

12. Applied Mathematics

13. Chemistry

14. Physics

15. Zoology

16. Botany

17. Nutrition and Food Science (INFS)

18. Mathematics

19. Statistics

20. Leather Engineering

21. Footwear Engineering

22. Leather product Engineering

23. Soil Water and Environment

24. Oceanography

25. Disaster Science and Management

26. Fisheries

27. Geology

28. Psychology

29. Geography and Environment

Post a Comment

0 Comments